Recruitment of 57 thousand teachers of private educational institutions

The Private Teacher Registration and Certification Authority (NTRCA) has taken initiative to recruit 56,000 teachers in MPO registered private educational institutions.

বেসরকারি শিক্ষক নিয়োগের আবেদন করার জন্য প্রথমে লিংকে প্রবেশ করুন। তারপর আপনার বিস্তারিত তথ্য দিয়ে আবেদন সম্পন্ন করুন।

58,360 vacant assistant teachers will be appointed. The list of these posts has been collected and finalized. However, the recruitment process has been stopped by the court order.

NTRCA sources said that an appeal would be lodged with the concerned branch of the Supreme Court this week seeking directions for the appointment of teachers to these posts.

এমপিওভুক্ত বেসরকারি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ৫৭ হাজার শিক্ষক নিয়োগ দেয়ার উদ্যোগ নিয়েছে বেসরকারি শিক্ষক নিবন্ধন ও প্রত্যয়ন কর্তৃপক্ষ (এনটিআরসিএ)। শূন্য থাকা ৫৭ হাজার ৩৬০ জন সহকারী শিক্ষকের পদে এ নিয়োগ দেয়া হবে।

এসব পদের তালিকা সংগ্রহ করে চূড়ান্তও করা হয়েছে। তবে আদালতের আদেশে এ নিয়োগ কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে।

সরকারীভাবে বিনামূল্যে প্রশিক্ষণ পাবে ১ লক্ষ বেকার, সাথে মিলবে ভাতা ও চাকরি

চলতি সপ্তাহে সুপ্রিম কোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় এসব পদে শিক্ষক নিয়োগের নির্দেশনা চেয়ে আপিল করা হবে বলে এনটিআরসিএ সূত্রে জানা গেছে।

জানা গেছে, এমপিওভুক্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শূন্য পদের তালিকা নেওয়া হয়েছে। তালিকায় দেখা গেছে, বিভিন্ন বিষয়ে ৫৭ হাজার ৩৬০টি শিক্ষকের পদ শূন্য রয়েছে। যাচাই-বাছাই শেষে এ তালিকা চূড়ান্ত করা হয়।

বিকাশ অ্যাপ ইন্সটল করলেই পাবেন  ১০০ টাকা বোনাস! বিকাশ অ্যাপ থেকে নিজের একাউন্ট খুলুন মিনিটেই। কোথাও যেতে হবে না! এই অফারটি নতুন ও পুরাতন সবাই পাবেন।

Bkash App Download Link

এ বিষয়ে এনটিআরসিএ’র চেয়ারম্যান আকরাম হোসেন গণমাধ্যমকে বলেন, সারাদেশের বেসরকারি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান থেকে অনুমোদিত শূন্য আসনের সংখ্যা পেলেও আদালতের নির্দেশনায় নিয়োগ শুরু করা যাচ্ছে না।

তিনি বলেন, ‘১৩তম নিবন্ধিত প্রার্থীদের মেধাক্রমে নিয়োগ শুরু করতে আমরা নতুন করে আদালতে আপিলের সিদ্ধান্ত নিয়েছি। চলতি সপ্তাহে আপিল করা হবে। আদালত থেকে নির্দেশনা পেলে তৃতীয় ধাপে নিয়োগ কার্যক্রম শুরু হবে।’

সূত্র জানায়, আদালতের নির্দেশনায় ২০১৭ সালে মেধা তালিকা তৈরি করা হয়। নিবন্ধিত প্রার্থীদের ওই তালিকা মোতাবেক নিয়োগ দিতে নির্দেশনা দিয়ে এমপিও নীতিমালা-২০১৮ প্রণয়ন করা হয়।

কিন্তু সুপ্রিম কোর্টের আপিল ডিভিশন ১৩তম নিবন্ধিত প্রার্থীদের সরাসরি নিয়োগ দিতে নির্দেশ দেন।

বাংলাদেশ সেনাবাহিনীতে নিয়োগ সম্পর্কে বিস্তারিত জানুন এখানে

এতে সিদ্ধান্ত দুটি হওয়ায় শূন্য পদের তালিকা চূড়ান্ত হলেও শিক্ষক নিয়োগ শুরু করা সম্ভব হয়নি। এ কারণে আপিল করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে এনটিআরসিএ। জানা গেছে, ১৫তম পর্যন্ত নিবন্ধিত মেধা তালিকায় ছয় লাখ ৩৪ হাজার জন রয়েছেন। এর মধ্যে এক লাখ ৮২১ জনের বয়স শেষ হওয়ায় তারা নিয়োগের সুযোগ পাবেন না।

তবে ৩৫ বছরের মধ্যে আরও দুই লাখ ৮৮ হাজার প্রার্থী রয়েছেন। তাদের অনেকে বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে নিয়োগ পেয়েছেন। প্রার্থীদের বড় অংশই নিয়োগের অপেক্ষায় রয়েছেন। মামলা জটিলতায়ও অনেকের বয়স পার হয়েছে।

এদিকে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রায় ৩৬ হাজার শিক্ষক নিয়োগ দেয়া হবে বলে জানা গেছে। প্রাক-প্রাথমিক পর্যায়ে ২৫ হাজার ৩০০ জন এবং প্রাথমিক পর্যায়ে ১০ হাজার সহকারী শিক্ষক নিয়োগ দেয়া হবে। দ্রুত সময়ের মধ্যে নিয়োগ কার্যক্রম শেষ করতে কিছু ক্ষেত্রে পরিবর্তন আসছে।

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতর সূত্রে জানা গেছে, সারাদেশে ২৫ হাজার ৩০০ জন প্রাক-প্রাথমিক শিক্ষক ও ১০ হাজার শূন্যপদে (এ সংখ্যা কমবেশি হতে পারে) সহকারী শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। দ্রুত সময়ের মধ্যে নিয়োগ প্রক্রিয়া শেষ করতে ওয়েবসাইট আধুনিকায়ন করা হচ্ছে।

It is learned that the list of vacant posts of MPO registered educational institutions has been taken. Application link is http://ntrca.teletalk.com.bd/admitcard/index.php. According to the list, there are 56,360 vacant posts in various subjects. The list is finalized after verification and selection.Share

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Shares